SAMSUNG Galaxy M32 5G ফোনটিকে দুর্দান্ত ছাড় দিয়ে কেনার সুযোগ, দেখুন দাম ও ফিচার

স্মার্টফোন কোম্পানি সামসুং SAMSUNG Galaxy M32 5G ফোনটিকে গত বছর অগাস্ট মাসে ভারতের বাজারে লঞ্চ করেছিল। আপনি যদি 20,000 টাকার মধ্যে নতুন স্মার্টফোন কেনার কথা ভাবছেন তাহলে এই ফোনটিকে ক্রয় করতে পারেন।

SAMSUNG Galaxy M32 5G


এই ফোনটিকে দুর্দান্ত ছাড়ে কেনার সুযোগ রয়েছে। SAMSUNG Galaxy M32 5G ফোনটির মধ্যে আপনি পেয়ে যাবেন 8GB RAM, 128GB ইন্টারনাল স্টোরেজ, 5G নেটওয়ার্ক, এবং Dimensity 720 প্রসেসর। এছাড়া এর মধ্যে আপনি পেয়ে যাবেন 6.5 ইঞ্চির HD+ ডিসপ্লে, কোয়াড রিয়ার ক্যামেরা সেটআপ, এবং 5000mAh এর দুর্দান্ত ব্যাটারি। তাহলে চলুন দেখে নেওয়া যাক ফোনটির দাম ও ফিচার সম্পর্কে বিস্তারিত তথ্য।

SAMSUNG Galaxy M32 5G ফোনটিকে এই মুহূর্তে 18,200 টাকা দিয়ে কিনতে পারবেন। এর আসল দাম 22,000 টাকা। অর্থাৎ ফোনটির উপরে আপনি পেয়ে যাচ্ছেন 3800 টাকা ছাড়। এই দাম ফোনটির 8GB RAM ও 128GB ইন্টারনাল স্টোরেজ ভেরিয়েন্টের। 

ফোনটিকে আপনি Sky Blue এবং Slate Black কালারে ক্রয় করতে পারবেন। এছাড়া ফোনটির উপরে রয়েছে বিভিন্ন ধরনের ব্যাংক অফার। আবার ফোনটিকে নো-কোস্ট ইএমআই এর মাধ্যমে কিনতে পারবেন। ফোনটিকে আপনি ই-কমার্স সাইট ফ্লিপকার্ট থেকে ক্রয় করতে পারবেন।

SAMSUNG Galaxy M32 5G ফোন ফিচার

SAMSUNG Galaxy M32 5G ফোনটির মধ্যে আপনি পেয়ে যাবেন 6.5 ইঞ্চির ফুল এইচডি+ SAMOLED ডিসপ্লে। যার স্ক্রীন রেজুলসন 720 পিক্সেল বাই 1600 পিক্সেল, এবং 90 হার্টজ রিফ্রেশ রেট। এর মধ্যে পেয়ে যাবেন Light sensor, Proximity sensor, Accelerometer, Compass, Gyroscope ইত্যাদি সেন্সর।

ফোনটির মধ্যে রয়েছে কোয়াড রিয়ার ক্যামেরা এবং সিঙ্গেল সেলফি ক্যামেরা সেটআপ। ফোনটির পিছনে রয়েছে 48+8+5+2 মেগাপিক্সেলের কোয়াড ক্যামেরা সেটআপ। সেলফি এবং ভিডিও কলিং এর জন্য এতে পেয়ে যাবেন 13 মেগাপিক্সেলের ফ্রন্ট ক্যামেরা। ফোনটির রিয়ার ক্যামেরাতে Auto Flash, Face detection, Touch to focus, ও 10 x Digital Zoom সাপোর্ট করবে।

SAMSUNG Galaxy M32 5G ফোনে 5G নেটওয়ার্ক সাপোর্ট করবে। এছাড়া এতে সাপোর্ট করবে ওয়াই-ফাই এবং ইউএসবি টাইপ-সি পোর্ট। পাওয়ার ব্যাকআপের জন্য এতে পেয়ে যাবেন 5000mAh এর ব্যাটারি। এতে 15W ফাস্ট চারজিং সাপোর্ট দেওয়া হয়েছে। এতে ডুয়েল ন্যানো সিম সাপোর্ট করবে। ফোনটির মধ্যে আপনি পেয়ে যাবেন 8GB RAM ও 128GB ইন্টারনাল স্টোরেজ। মেমোরি কার্ড এর মাধ্যমে ফোনটির স্টোরেজ 1TB পর্যন্ত বাড়াতে পারবেন। এছাড়া ফোনটিকে 6GB RAM সহও পাওয়া যাবে।

সিকুরিটির জন্য এতে পেয়ে যাবেন ফিঙ্গারপ্রিন্ট সেন্সর এবং ফেস আনলক ফিচার। পারফরমান্সের জন্য এতে আপনি পেয়ে যাবেন Dimensity 720 প্রসেসর। ফোনটি Android 11 অপারেটিং সিস্টেমে চলবে। ফোনটি Sky Blue এবং Slate Black কালারে উপলব্ধ রয়েছে।


Post a Comment

Previous Post Next Post